October 26, 2021

TV Bangla New Agency

Just another WordPress site

ন্যায় পায়নি মেয়ে, মর্মাহত মা বাবা

মালদা:-বৈষ্ণবনগর থানার সব্দলপুর গ্রামে শ্বশুরবাড়ি থেকে মোটর বাইক না দেওয়াই স্ত্রীকে খুন করে পরিবারকে না জানিয়ে শ্মশানে শব দাহ করার অভিযোগ স্বামী সহ পরিবারের বিরুদ্ধে। এই মর্মৈ অভিযুক্ত স্বামী, শ্বশুর, শাশুড়ি সহ পরিবারের সাতজনের বিরুদ্ধে বৈষ্ণবনগর থানা সহ মালদা জেলা পুলিশ সুপার অফিসে লিখিত অভিযোগ দায়ের করার মাস দুয়েক কেটে গেলেও এখনো পুলিশের তরফ থেকে কোনো আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হয়নি বলে অভিযোগ মৃতের মা বাবার। তাদের আরো অভিযোগ মেয়ে ৮মাসের গর্ভবতী ছিল সেই অবস্থায় তাকে খুন করা হয়েছিল। ঘটনার দিন বৈষ্ণবনগর থানায় গিয়ে পুলিশকে অনুরোধ করেও মৃত মেয়ের মুখটি শেষ দেখার সুযোগো করে দেয়নি পুলিশ, বরঞ্চ দীর্ঘক্ষন থানায় তাদের আটকে রেখে পোস্টমর্টেম না করে মেয়েকে শ্মশানে নিয়ে গিয়ে পুড়িয়ে ফেলার সুযোগ করে দেয় অভিযুক্ত পরিবারকে। তাই মেয়ের খুনের আসামির শাস্তির দাবিতে পুলিশের ওপর আস্থা ছেড়ে এখন আইনজীবীদের দ্বারস্থ মৃতের মা-বাবা।
জানা যায়,প্রায় বছর চারেক আগে বৈষ্ণবনগর থানার চরসুজাপুর গ্রামের বাসিন্দা যতীন মন্ডলের মেয়ে প্রিয়াঙ্কা মন্ডলের বিয়ে হয় সব্দলপুর গ্রামের যুবক জয়ন্ত মন্ডলের সঙ্গে। পেশায় শ্রমিক। বিয়ের পর তাদের একটি বর্তমানে তিন বছরের ছেলেও রয়েছে। বেশ কয়েক মাস ধরে শ্বশুরবাড়ি থেকে মোটর বাইক নেওয়ার দাবি তোলে জয়ন্ত মন্ডল। বাবার বাড়ি থেকে টাকা নিয়ে আসতে স্ত্রীকে চাপ সৃষ্টি করে। সে নিয়ে দিনের-পর-দিন চরম বচসাও হয়। অবশেষে ১৫ই আগস্ট মেয়ের মৃত্যুর ঘটনার খবর শুনতে পায় মা বাবা। সঙ্গে সঙ্গে ছুটে জামাই বাড়িতে গেলে মেয়েকে দেখতে দেওয়া হয় না। সেই অবস্থায় বৈষ্ণবনগর থানার দ্বারস্থ হয়। কিন্তু এখন পর্যন্ত তার কোনো আইনগত ব্যবস্থা না হওয়াই মর্মাহত মৃতের মা-বাবা।